মঙ্গলবার, ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৪:২০ পূর্বাহ্ন

বড়াইগ্রামে আওয়ামীলীগ নেত্রীকে মারপিট নির্যাতনের বিচার চাইলেন পৌর আওয়ামীলীগ নেতৃবৃন্দ

admin
  • আপডেট টাইম : বুধবার ১৩ মে, ২০২০
  • ৮০৬ বার পঠিত

নিজস্ব প্রতিবেদক
নাটোরের বড়াইগ্রামের পৌর মহিলা আওয়ামী লীগের ওয়ার্ড সভাপতিকে মারপিট নির্যাতনের বিচার চাইলেন আওয়ামী লীগের নেতৃবৃন্দ বুধবার বিকেলে বাজারে আওয়ামী লীগের কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে এই দাবী করেন নেতৃবৃন্দ।
এ সময় মারপিট ও নির্যাতনের শিকার পৌর আওয়ামীলীগের ৫ নং ওয়ার্ড সভাপতি আজমেরী আক্তার লিপি জানান, হতদরিদ্রদের জন্য কম দামে টিসিবির পণ্য বিক্রির স্থান ও সময়ের বিষয়টি সাধারণ মানুষকে অবহিত করতে তিনি পৌর এলাকার বিভিন্ন স্থানে যান। এ সময় তার বাড়ির অদূরে গেলে জমিজমা নিয়ে বিরোধের জেরে আসমা বেগম তাকে আকস্মিক ভাবে লাঠিপেটা করতে থাকে। এ সময় আসমার সাথে তার পরিবারের লোকজন যোগ দিয়ে বাড়ির ভিতরে নিয়ে লিপিকে বেধড়ক মারপিট করে হাত ভেঙ্গে দেয় ও আহত করে। পরে লিপি আর্ত চিৎকারে আশেপাশের লোকজন ছুটে এসে তাকে উদ্ধার করে। এ ঘটনার পর তিনি তার দলীয় নেতা-কর্মীদেরকে বিষয়টি জানালে স্থানীয় সাংবাদিক মুক্তিসহ কয়েকজন নেতৃবৃন্দ সেখানে ছুটে যান। এ সময় আসামিপক্ষের লোকজনের আঘাতে আহত হন স্থানীয় সাংবাদিক মুক্তি রহমান ও আওয়ামী লীগ নেত্রী জেলা পরিষদের সদস্য মৌটুসি আক্তার মুক্তা। পরে লিপিকে বড়াইগ্রাম উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসা দেওয়া হয়।
এরপর দুপুরে পৌর আওয়ামী লীগের কার্যালয়ে সংবাদ সম্মেলনে এ ঘটনায় জড়িতদের শাস্তি দাবি করেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মাহবুবুল হকনবাচ্চুসহ নেতৃবৃন্দ। এতে স্থানীয় আওয়ামী লীগের নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।
মাহবুবুল হক বাচ্চু বলেন, ওই জায়গাটির উপর লিপি আদালতের ডিগ্রি পেয়েছেন তারপরও আসমা জায়গা দখল ছেড়ে না দিয়ে নানাভাবে সময়ক্ষেপণ করছেন এবং আজ মারপিট করে আইন লংঘন করেছেন। তিনি আইনগত ভাবে জায়গাটি লিপিকে বুঝিয়ে দেয়ার আহবান সহ মারপিট ও নির্যাতনে বিচার দাবি করেন।

Show quoted text

নিউজটি শেয়ার করুন


এ জাতীয় আরো খবর..