মঙ্গলবার, ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৪:৫৮ পূর্বাহ্ন

বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি পরীক্ষা চলছে

admin@ns
  • আপডেট টাইম : মঙ্গলবার ১৪ জানুয়ারী, ২০২০
  • ৩৩২ বার পঠিত

নির্ধারিত সময়ের প্রায় আড়াই মাস পর বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয়ের ২০১৯-২০ শিক্ষাবর্ষে স্নাতক সম্মান প্রথম বর্ষের ভর্তি পরীক্ষা শুরু হয়েছে।

শুক্রবার সকাল থেকে বৈরী আবহাওয়া ও বৃষ্টির কারণে বিপাকে পড়েন শিক্ষার্থীরা। দুই দিনব্যাপী ভর্তি পরীক্ষায় শুক্রবার সকাল ১০টায় বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসসহ ৪টি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান কেন্দ্রে একযোগে অনুষ্ঠিত হয়।

সকালে অনুষ্ঠিত ‘খ’ ইউনিটের ভর্তি পরীক্ষায় ৫৬০টি আসনের বিপরীতে অংশ নেয় ১০ হাজার ১০৬ জন শিক্ষার্থী। পরীক্ষা শুরুর পরপরই সরকারি মহিলা কলেজ কেন্দ্র পরিদর্শন করেন বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য প্রফেসর ড. মো. ছাদেকুল আরেফিন।

তিনি কেন্দ্র পরিদর্শন করে সার্বিক প্রস্তুতির সন্তুষ্টি প্রকাশ করেন। এবার কোনো প্রশ্নপত্র ফাঁস বা ফাঁসের গুজব না ছড়ানোয় সকলকে ধন্যবাদ জানান। তবে সকালের বৃষ্টিতে ভর্তিচ্ছু শিক্ষার্থীদের কিছুটা ভোগান্তিতে পড়তে হয় বলে জানান উপাচার্য।

বিকেল ৩টা থেকে ৪টা পর্যন্ত ‘গ’ ইউনিটে বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসসহ ২টি কেন্দ্রে ৩০০ আসনের বিপরীতে ৬ হাজার ১২ জন ভর্তি পরীক্ষায় অংশ নিয়েছে।

দ্বিতীয় দিন শনিবার সকাল ১১টা থেকে বেলা সাড়ে ১২টা পর্যন্ত বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসসহ ১২টি কেন্দ্রে ‘ক’ ইউনিটে ৫৮০টি আসনের বিপরীতে ২০ হাজার ৫৬৭ জন শিক্ষার্থী পরীক্ষায় অংশ নেবে।

পরীক্ষা শেষে আগামী ৩০ ডিসেম্বর ফল প্রকাশ করার কথা বলেছেন উপাচার্য।

এবার বিশ্ববিদ্যালয়ের ৬টি অনুষদের ২৪টি বিভাগে ১ হাজার ৪৪০টি আসনের বিপরীতে ভর্তি পরীক্ষার্থীর সংখ্যা ৪৯ হাজার ৯৫৬ জন। প্রতি আসনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছে ৩৫ জন শিক্ষার্থী।

উপাচার্য প্রফেসর ড. মো. ছাদেকুল আরেফিন জানান, গত ১৭ ও ১৮ অক্টোবর ভর্তি পরীক্ষার পূর্বনির্ধারিত তারিখ ধার্য থাকলেও উপাচার্য, ট্রেজারার, রেজিস্ট্রার ও পরীক্ষা নিয়ন্ত্রকসহ গুরুত্বপূর্ণ ৫টি পদ শূন্য থাকায় ভর্তি পরীক্ষা স্থগিত করে কর্তৃপক্ষ।

তবে ওই সময় ছাপানো ভর্তি পরীক্ষার প্রশ্নপত্র বাদ দিয়ে নতুন প্রশ্নপত্রে পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

বরিশাল সিটি করপোরেশনের জনসংযোগ কর্মকর্তা বেলায়েত বাবলু জানান, বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তিচ্ছু শিক্ষার্থীদের জন্য ফ্রি বাস সার্ভিসের ব্যবস্থা করেছেন বরিশাল সিটি মেয়র সেরনিয়বাত সাদিক আবদুল্লাহ। সকাল ৮টা থেকে সন্ধ্যা পর্যন্ত নগরীর নথুল্লাবাদ ও রূপাতলী বাস টার্মিনাল এবং লঞ্চঘাট থেকে ভর্তিচ্ছু শিক্ষার্থীদের গন্তব্যে পৌঁছে দেওয়ার জন্য সিটি মেয়র ১২টি বাস সার্ভিসের ব্যবস্থা করেন।

নিউজটি শেয়ার করুন


এ জাতীয় আরো খবর..