শুক্রবার, ১৭ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১২:২০ অপরাহ্ন

বড়াইগ্রামে স্বামীর পরকীয়ার প্রতিবাদ করায় …

admin
  • আপডেট টাইম : শনিবার ২৯ ফেব্রুয়ারী, ২০২০
  • ৭৫৯ বার পঠিত

নিজস্ব প্রতিবেদক

নাটোরের বড়াইগ্রামের জোয়ারী এলাকায় স্বামীর পরকীয়ার প্রতিবাদ করায় মদ্যপ স্বামীর মারপিট ও নির্যাতনে চোখ নষ্ট হতে চলেছে এক গৃহবধূর।

নির্যাতিতা গৃহবধূ হালিমা বেগম জানান, বড়াইগ্রাম উপজেলার জোয়ারী মযমনসিংহপাড়া এলাকার সুরুজ মিয়ার সাথে ১০ বছর আগে বিয়ে হয় তার। তাদের ঘরে একটি কন্যা সন্তানও আছে। পাশ্ববর্তী এক বিবাহিত নারীর সাথে পরকীয়া আছে স্বামী সুরুজের। প্রতিদিনই সেখানে সময় কাটিয়ে নেশা করে বাড়ি ফেরে সে। প্রায়ই নেশা করে রাতে এসে তাকে বেদম মারপিট করে সুরুজ। গতরাতেও খাবার দিতে গেলে হালিমাকে ব্যাপক মারপিট ও নির্যাতন করে হালিম। এ সময় তাদের কন্যা সন্তানটি কান্নাকাটি করলে তার টুটি চেপে ধরে ছুড়ে ফেলে দিয়ে সুরুজ ঘর থেকে বের হয়ে যায়। তাদের কান্না কাটিতে প্রতিবেশিরা এগিয়ে হালিমা ও তার মেয়েকে উদ্ধার করে। এই নির্যাতনে তার ডান চোখ নষ্টের পথে। পরে সে তার এক স্বজনের বাড়িতে আশ্রয় নেয়।

খবর পেয়ে পুলিশ গিয়ে হালিমাকে উদ্ধার করে চিকিৎসার জন্য হাসপাতালে ভর্তি করে। এ ঘটনার পর থেকে স্বামী সুরুজ পলাতক রয়েছে। থানায় মামলার প্রস্তুতি চলছে বলে জানিয়েছে পুলিশ।

নিউজটি শেয়ার করুন


এ জাতীয় আরো খবর..