মঙ্গলবার, ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৫:০৮ পূর্বাহ্ন

লালপুরে আওয়ামীলীগের প্রতিবাদ সভাকে কেন্দ্র করে পুলিশ মোতায়েন- হামলা চেষ্টা

admin
  • আপডেট টাইম : রবিবার ১৪ মার্চ, ২০২১
  • ১৭৩ বার পঠিত

নাটোর, ১৪ মার্চ-
নাটোরের লালপুরের চাঁদপুর বাজারে আওয়ামীলীগের প্রতিবাদ সভাকে কেন্দ্র করে উত্তেজনা, টেবিল ভাংচুর ও মাইক ছিনিয়ে নেয়ার ঘটনা ঘটেছে। এদিকে উদ্ভুত পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে এলাকায় পুলিশ মোতায়েন করা হয় এবং উভয় পক্ষের লোকজনকে সরিয়ে দেয়া হয়। তবে এ ঘটনায় তাৎক্ষনিক প্রেস বিফ্রিং এ স্থানীয় চেয়ারম্যান দাবী করেন, তার পূর্ব ঘোষিত প্রতিবাদ সভা ভন্ডুল করতে সম্পূর্ণ পরিকল্পিত ভাবে ওই এলাকায় লাঠিশোটা নিয়ে অবস্থান নেয় এমপি সমর্থকরা। এছাড়া তার উপর হামলার চেষ্টা করে সন্ত্রাসীরা। এ সময় মোবাইল ভাংচুর ও একটি মোবাইল ছিনিয়ে নেয় তারা।
স্থানীয়রা জানায়, গতকাল শনিবার গোপালপুর পৌরসভায় একটি ওয়ার্ড আওয়ামীলীগের একাংশের সম্মেলনে সাবেক এমপি ও জেলা আওয়ামীলীগের সহ সভাপতি, উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদককে জড়িয়ে কুরুচিপূর্ণ বক্তব্য প্রদান করেন উপজেলা আওয়ামীলীগের সহসভাপতি এস্কান্দার মির্জা। এ ঘটনায় চাঁদপুর বাজারে রবিবার বিকালে বিক্ষোভ ও প্রতিবাদ মিছিলের ঘোষণা দেয় ইউনিয়ন আওয়ামীলীগ। কিন্তু বিষয়টি জানতে পেরে বর্তমান সাংসদ শহিদুল ইসলাম বকুলের সর্মথকরা সেখানে অবস্থান নেয় ও ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের অনুষ্ঠান স্থল ইউপি চেয়ারম্যানের অফিসের সামনে থেকে মাইক জোর পূর্বক নিয়ে এবং টেবিল ভাংচুর করে। এ সময় ইউপি চেয়ারম্যান সেলিম উদ্দিন মাস্টার তার অনুষ্ঠান স্থলে তদারকি করতে গেলে এমপি সমর্থকরা তার উপর হামলা চালানোর চেষ্টা করে ও তাকে অফিসে অবরুদ্ধ করে রাখে বলে অভিযোগ উঠেছে। এ সময় একটি আই ফোন ভাংচুর ও একটি মোবাইল ছিনিয়ে নেয় হামলাকারীরা। পরে খবর পেয়ে লালপুর থানা পুলিশ ও ওয়ালিয়া ফাড়ির পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে দুই গ্রুপকেই বাজার এলাকা ত্যাগ করার নির্দেশ দেন। পরে কোন পক্ষই আর সমবেত হতে পারেনি।
এদিকে এ ঘটনার পর পরই সেলিম মাষ্টার তার নিজ কার্যালয়ে সাংবাদিকদের সাথে প্রেস ব্রিফিংএ বলেন, তার পূর্ব ঘোষিত অনুষ্ঠান বানচাল করতে এমপি সমর্থক জামায়াত বিএনপির লোকজন দিয়ে হামলা করেছে। তিনি এমন ন্যাক্ক্যারজনক ঘটনার প্রতিবাদ ও বিচার দাবী করেন। এছাড়া এর জন্য তিনি আইনের আশ্রয় নেবেন বলে জানান। এ সময় ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সভাপতি হাসান আলীসহ ই্উনিয়ন ও ওয়ার্ড পর্যায়ের নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।
বর্তমানে এলাকায় অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

নিউজটি শেয়ার করুন


এ জাতীয় আরো খবর..